Uncategorized

জুনের মাঝামাঝি ভারতে করোনা আক্রান্ত হবে ১.৮৬ লক্ষ মানুষ: রিপোর্ট – Kolkata24x7

নয়াদিল্লি : যে গতিতে করোনা এগোচ্ছে, তাতে ভারতে আর কিছুদিনের মধ্যেই লক্ষাধিক হবে আক্রান্তের সংখ্যা। টাইমস নাওয়ের রিপোর্ট বলছে আগামী এক মাসের মধ্যে দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা হবে ১.৮৬ লক্ষ। জুন মাসের ১৮ তারিখের মধ্যে এই সংখ্যা ছোঁবে ভারত। মে মাসের তেরো তারিখে দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৭০ হাজার ছাড়িয়ে গিয়েছে।

দেশজুড়ে ফের বেড়েছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। শেষ ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু হয়েছে ১২২ জনের। যার ফলে দেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ২৪১৫ জন। দেশে মোট ৭৪ হাজার ২৮১ জন আক্রান্তের মধ্যে অ্যাক্টিভ কেস রয়েছে ৪৭ হাজারের কিছু বেশি। সুস্থ হয়ে উঠেছেন অথবা দেশে ফিরে গিয়েছেন এমন মানুষের সংখ্যা ২৪ হাজার ৩৮৬ জন। স্বাস্থ্যমন্ত্রক সূত্রে এখবর জানা গিয়েছে। রিপোর্ট বলছে জুনের সাত তারিখের মধ্যে সবথেকে খারাপ পরিস্থিতি হবে মহারাষ্ট্রে। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়াবে ৫১ হাজারের ঘর।

এরপরেই থাকবে গুজরাত। ১৭ই জুনের মধ্যে ২৯,৪০০ ছাড়াবে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। তামিল নাড়ু থাকবে তৃতীয় স্থানে। ছাড়াবে ২৬ হাজারের ঘর তেসরা জুনের পরে। রেহাই পাবে না উত্তরপ্রদেশও। ২১ জুনের মধ্যে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াবে ৩০ হাজারেরও বেশি। ১৩ জুনের মধ্যে রাজস্থান দেখবে ৭৩০০-রও বেশি আক্রান্তের সংখ্যা।

এই রিপোর্ট তালিকায় রেখেছে পশ্চিমবঙ্গকেও। ২০ জুনের মধ্যে রাজ্যে ২০ হাজার ছাড়াবে আক্রান্তের সংখ্যা। আপাতত দেশের মধ্যে মহারাষ্ট্রে করোনা সংক্রমণ ও মৃতের হার সর্বাধিক। এরপরেই রয়েছে গুজরাত। তৃতীয় স্থানে রাজধানী শহর দিল্লি। অন্যদিকে, দেশে ১৭ মে-র পর থেকে লকডাউন ৪.০ শুরু হতে চলেছে।

মঙ্গলবার জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দিতে গিয়ে মোদী বলেন, ‘১৮ মে-র আগেই নতুন লকডাউনের নিয়ম জানিয়ে দেওয়া হবে।’ এ দিনের ভাষণে দেশের জন্য বিশেষ আর্থিক প্যাকেজ ঘোষণা করেন নরেন্দ্র মোদী। মোট ২০ লক্ষ কোটির প্যাকেজ ঘোষণা করলেন তিনি, যা ভারতের জিডিপি-র প্রায় ১০ শতাংশ বলে জানিয়েছেন তিনি। কুটির উদ্যোগ, গ্রামোদ্যোগ, কৃষি ক্ষেত্র, মধ্যবিত্ত সবার জন্যই কাজ করবে এই প্যাকেজ। মোদী বলেন, এতে ভারতের সব সেক্টরের গতি বাড়বে ও কাজের মানও উন্নত হবে।





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Related Articles

Back to top button
Close
%d bloggers like this: