Uncategorized

এসএসসির ফল : প্রি-রেজিস্ট্রেশনের নিয়ম জানালো টেলিট’ক

করো’নাভাই’রাসের কারণে সবকিছু থমকে গেলেও আগামী ২১ মে’র পর যে কোনো দিন এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশের প্রস্তুতি শুরু করেছে সরকার।

আগামী ২৮ মে’র মধ্যে ফল প্রকাশ হতে পারে বলে শিক্ষা বোর্ড সূত্র জানিয়েছে। সে অনুযায়ী এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল জানাতে প্রি-রেজিস্ট্রেশন কার্যক্রম শুরু করেছেন রাষ্ট্রায়ত্ত মোবাইল ফোন অ’পারেটর টেলিট’ক।

জানা গেছে, এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল তৈরির কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। এরপর ২১ মে’র পর ফল প্রকাশ করার জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাব পাঠিয়েছে আন্তঃশিক্ষা সমন্বয়ক বোর্ড কমিটি। সেটি প্রধানমন্ত্রীর কাছে পাঠাবে মন্ত্রণালয়। প্রধানমন্ত্রী সময় দিলে সেদিনই ফল প্রকাশ করা হবে।

এসএসসি পরীক্ষার এই ফল জানাতে প্রি-রেজিস্ট্রেশন কার্যক্রম শুরু করেছে টেলিট’ক। গ্রাহকদেরকে ইতোমধ্যে এসএমএসের মাধ্যমে সে তথ্য জানাতে শুরু করেছে অ’পারেটরটি। তাতে বলা হয়েছে, চলতি বছরের এসএসসি পরীক্ষার ফল এর প্রি-রেজিস্ট্রেশন কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

ফল প্রকাশের দিন স্বাস্থ্য বিধি মেনে ঘরে থেকে সরাসরি মোবাইলে ফল পেতে টেলিট’ক নম্বর থেকে মেসেজ করতে হবে। সেজন্য টাইপ করতে হবে এই নিয়মে : SSC<>Board Name<>Roll<>Year। আর এটি পাঠিয়ে দিতে হবে 16222 নাম্বারে। একজন যতবার খুশি ততবার পাঠাতে পারলেও সেজন্য চার্জ প্রযোজ্য হবে।

সূত্রে জানা যায়, ঈদের আগে বা পরে প্রধানমন্ত্রী ফল প্রকাশের সময় নির্ধারণ করবেন। তখন পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হবে। ঢাকা শিক্ষা বোর্ড সূত্র জানিয়েছে, চলতি মাসের মধ্যেই এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হবে। সে অনুযায়ী, সবগুলো শিক্ষা বোর্ড দুই শিফটে কাজ করছে। সব ঠিক থাকলে ২৬ থেকে ২৮ মে’র মধ্যে ফল প্রকাশ করা হতে পারে।

এবারও স্ব স্ব শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে ফল প্রকাশ করা হবে। পাশাপাশি টেলিট’কের মাধ্যমে এসএমএস করে পরীক্ষা ফল জানা যাবে। তবে ঘরের বাইরে না গিয়ে কী’ভাবে সহ’জেই সবার কাছে ফলাফল পৌঁছে দেয়া যায় সে চেষ্টা চলছে বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অ’তিরিক্ত সচিব নাজমুল হক রবিবার গণমাধ্যমকে বলেন, ‘২১ মে’র পর এসএসসি-সমমান পরীক্ষার ফল প্রস্তুতের কাজ শেষ হবে। বিষয়টি আন্তঃশিক্ষা সমন্বয় বোর্ড থেকে জানানো হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘এর ভিত্তিতে আম’রা প্রধানমন্ত্রীর সময় চেয়ে প্রস্তাব পাঠাব। চলতি সপ্তাহের মধ্যে এ প্রস্তাব পাঠানো হবে। প্রধানমন্ত্রী যেদিন সময় দেবেন সেদিনই ফল প্রকাশ করা হবে।’

জানা গেছে, ডাক বিভাগের মাধ্যমে ঢাকার বাইরের উত্তরপত্র দ্রুত নিয়ে এসেছে বোর্ড। ইতোমধ্যে ওএমআর শিটের স্ক্যানিং কাজ শেষ হওয়ার পথে। কাজ দ্রুত এগিয়ে নিতে সবাই দুই শিফটে কাজ করছেন। প্রায় শতভাগ উত্তরপত্র চলে এসেছে। সে মোতাবেক ২৬ থেকে ২৮ মে’র ফলাফল প্রকাশের সম্ভবনা রয়েছে।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান মু. জিয়াউল হক গণমাধ্যমকে বলেন, ‘ফল দ্রুত তৈরি করতে দুই শিফটে কাজ চলছে। উত্তরপত্র দ্রুত নিয়ে আসতে ডাক বিভাগ যথেষ্ট সহায়তা করছে। আশা করছি, এ মাসের শেষ দিকে ফল প্রকাশ করা



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Related Articles

Back to top button
Close
%d bloggers like this: