Uncategorized

অন্যান্য বাড়িওয়ালাদের ভাড়া না নেয়ার আহ্বান, নিজেও বাড়িভাড়া নেবেন না ব্যরিস্টার সুমন

বাড়িভাড়া নেবেন না সুমন- করোনা সংক’ট চলাকালে বাড়ির ভাড়াটিয়াদের কমপক্ষে এক মাসের ভাড়া মওকুফ করে দেয়ার জন্য দেশের বাড়িওয়ালাদের আহ্বান জানিয়েছেন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে জনপ্রিয় ব্যক্তিত্ব ও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন।

বুধবার (১৩মে) বিকেলে তিনি তার ফেসবুক পেজে এক লাইভ ভিডিওতে বাড়িওয়ালাদের প্রতি এই আহ্বান জানান।

এর আগে সুমন নিজের বাড়ির ১০ জন ভাড়াটিয়ার এক মাসের বাড়িভাড়া না নেয়ার ঘোষণা দেন। এ বিষয়ে ব্যারিস্টার সাইদুল হক সুমন বলেন, হযরত মুহাম্মদ (সা.) বলেছেন, তুমি কাউকে ভালো কাজের উপদেশ দিলে আগে নিজে সেই কাজটি করো এবং পরে অন্যদের উপদেশ দাও।

সে হিসেবে আমি আগে নিজের বাড়ির ১০ জন ভাড়াটিয়ার এক মাসের ভাড়া মওকুফ করে দিয়েছি। একই সাথে দেশের সকল বাড়িওয়ালার প্রতি আহ্বান জানিয়েছি তারাও যেন এই দুর্যোগের সময় ভাড়াটিয়াদের কাছ থেকে এক মাসের বাড়ি ভাড়া গ্রহণ না করেন।

লাইভের শুরুতে সুমন বলেন, করোনা’ভাই’রাসে অসুখে ম’রবো নাকি না খেয়ে ম’রবো? এর সাথে আরও একটি প্রশ্ন যোগ হয়েছে বাড়িভাড়া দেব কীভাবে? প্রায় তিন মাস হয়ে গেছে আমি লকডাউন আছি। এখন ঢাকার বাড়িভাড়া দেয়া আমার পক্ষেই কঠিন।

সুমন বলেন, এ বিষয়ে বিবেচনায় আপনাদের সামনে বলতে চাই, বিভিন্ন জায়গায় বাড়ির মালিকদের উদ্দেশ্যেও একটি কথা বলতে চাই। দেখুন যারা বাড়ির ভাড়াটিয়া তারা বিভিন্ন জায়গায় চাকরি করেন। এর মধ্যে যারা বেসরকারি চাকরি করেন তারা ৯০% বেতন পাচ্ছে না। আর বোনাস তো দূরে থাক।

তিনি বলেন, সরকারি চাকরি যারা করেন তারা শুধু বেতনটা পেয়েছেন। বাড়ির মালিকদের আমি বলতে চাই, ১০০ বছরের মধ্যে হয়তো এমন মহা’মারি আর আসবে না। আপনারা কি পারেন না এই মহা’মারিতে অন্তত একটা মাসের ভাড়া বা দুইটা মাসের ভাড়া মাফ করে দিতে পারেন না ভাড়াটিয়াদের। আপনারা যারা সামর্থ্যবান বাড়িওয়ালা আছেন তারা এই দুর্যোগে একটা মাসের ভাড়া হলেও মাফ করে দেন।

সুমন আরও বলেন, দেখুন যেসব বাড়িওয়ালা শুধু বাড়ির ভাড়ার ওপর চলেন তারা না হয় মাফ নাই করলেন। কিন্তু অনেক বাড়িওয়ালা আছেন যাদের আমি চিনি-জানি যাদের এই বাড়িভাড়ার টাকা আপনাদের লাগে না। তারা চাইলেই এক দুই মাসের বাড়ি ভাড়া মওকুফ করে দিলে তাদের কিচ্ছু যায় আসে না।

তিনি বলেন, যারা আমাকে ফলো করেন এর মধ্যে যারা বাড়িওয়ালা আছেন তাদের বলব এই তিন মাসের বাড়ি ভাড়া ম্যানেজ করে আপনাদের দেয়া যে কত কষ্ট! আপনাদের অনুরোধ করব অন্তত সামান্য হলেও এক মাসের বাড়ি ভাড়া মওকুফ করে দিতে।

এই রমজান মাসে ভাড়াটিয়াদের প্রতি সাহায্যের হাত বাড়ানোর আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, রমজানে অনেকে তো সাহায্য দেয়, রোজার মাসে জাকাত দেয়, এটা (ভাড়া) সাহায্য মনে করেও যদি আপনি বাড়িভাড়াটা মাফ করে দেন। তাহলে ভাড়াটিয়া ও বাড়িওয়ালাদের মধ্যে সম্পর্ক অন্য মাত্রায় চলে যাবে। আপনিও মানসিকভাবে এমন তৃপ্তি পাবেন যে বাড়িভাড়া মওকুফ করে দিয়ে নতুন একটি দৃষ্টান্ত করেছেন।

লাইভের শেষ দিকে এসে বাড়িওয়ালাদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে সুমন বলেন, আমি পরিশেষে এই ভিডিও থেকে বিদায় নেয়ার আগে একটি কথা বলতে চাই, আমরা যদি আমাদের লোকজনদের পাশে না দাঁড়ায় তাহলে পৃথিবীর কে দাঁড়াবে বলেন?

তিনি বলেন, পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে সরকার তাদের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠাচ্ছে সেই টাকা দিয়ে তারা চলছে। কিন্তু আমরা মানসিকভাবে গরিব শারীরিকভাবেও গরিব। মানসিকভাবে গরিব না হলে আমরা দু’র্নী’তি করে বারোটা বাজিয়ে দিয়েছি?

তিনি বলেন, সরকার খাবার দিতে গিয়েই তো হিমশিম খাচ্ছে! আবার অর্থনৈতিক বা আর্থিকভাবে কী সাহায্য করবে? তাই আপনাদের আবারও আহ্বান জানিয়ে বলতে চাই এই বাড়িভাড়াটা কী রকমের একটা যন্ত্রণার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

অন্তত লকডাউনের সময়টা পর্যন্ত হয়তো দুই-তিন মাসের ভাড়া হয়তো বাকি পড়বে, বাড়ির মালিক যারা আছেন ভাড়াটিয়ার যদি একটা মাসের ভাড়া মাফ করে দেন, তাহলে কে জানে তাদের অনেক বড় উপকার হয়ে যেতে পারে। ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন এই কামনায় শেষ করছি আল্লাহ হাফেজ।





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Related Articles

Back to top button
Close
%d bloggers like this: